বিজ্ঞপ্তি:
"কুমিল্লা টাইমস টিভিতে" আপনার প্রতিষ্ঠান অথবা নির্বাচনী প্রচারনার জন্য এখনি যোগাযোগ করুন : ০১৬২২৩৮৮৫৪০ এই নম্বরে
শিরোনাম:
কুমিল্লায় আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে আইনি সহায়তার ঘোষণা ১১ বছর পর ব্যবসায়ী ফারুক হত্যা মামলার রায় ডাকাতির ঘটনায় মোবাইল হারানোর জিডি নিলো পুলিশ কুমিল্লায় মায়ের কোপে মেয়ে খুন! মুরাদনগরে ভূমি সেবা সপ্তাহের সমাপনী; শ্রেষ্ঠ কর্মকর্তাদের সম্মাননা প্রদান ঢাকাস্থ মুরাদনগর ছাত্রকল্যাণ পরিষদের সভাপতি আমিন ও সাধারণ সম্পাদক হাবিব শ্রদ্ধা ও ভালোবাসায় নার্গিস আফজালকে চিরো বিদায় ধর্ষণ মামলায় কুমিল্লা থেকে প্রিন্স মামুন গ্রেফতার ব্যবসায়ীকে তিন দিনের মধ্যে মেরে ফেলার হুমকি, নিরাপত্তা চেয়ে থানায় অভিযোগ অনিয়মের সংবাদ প্রকাশে সুফল পাচ্ছে এলাকাবাস কুমিল্লায় বিএনপির দুই গ্রুপে সংঘর্ষ, গুলি-ককটেল বিস্ফোরণ বিশ্ব মুক্ত গণমাধ্যম দিবসে কুমিল্লায় সম্মাননা পেলেন ৭ সংবাদকর্মী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ১৭জন প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র দাখিল কুমিল্লায় তীব্র গরমে একই বিদ্যালয়ের ৭ শিক্ষার্থী অসুস্থ মুরাদনগরে নাগরিক ঐক্য পরিষদের প্রার্থী ঘোষনা

জীবনের শেষ স্ট্যাটাস ফেসবুকে লিখে তরুণের আত্মহত্যা

  • আপডেটের সময় : রবিবার, ১২ জুলাই, ২০২০
  • ১০১১ বার পড়া হয়েছে
ফিরোজ আলম তুহিন

ফয়সাল, স্টাফ রিপোর্টঃ

কুমিল্লার মনোহরগঞ্জের হাসনাবাদ ইউনিয়নের আশিয়াদারি গ্রামের ফিরোজ আলম তুহিন (২৫) নামক এক ছেলে ফেসবুকে তার জীবনের শেষ স্ট্যাটাস লিখে আত্যহত্যা করেছেন। তার ফেসবুকে দেয়া স্ট্যাটাসের শিরোনামে ছিলো “জীবনের শেষ স্ট্যাটাস লিখেই গেলাম”। স্ট্যাটাসটি তার নিজের ফেসবুক ওয়ালে পোস্টদিয়ে সে বিষপান করে আত্মহত্যা করেন। এই তরুন আশিয়াবাদ গ্রামের তোসলিম হোসেন সেলিমের একমাত্র ছেলে।

জানা যায়, ফিরোজ আলম তুহিন চাঁদপুর পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটে অধ্যায়নরত ছিলেন। ফেসবুকের স্ট্যাটাস সূত্রে জানা যায়, পরিবারের চাপ, তার ভবিষ্যৎ এর কথা চিন্তা, চাকুরি, জীবন সঙ্গিনী ইত্যাদি বিষয়াদি নিয়ে ডিপ্রেশনে ভূগছিলেন। গত ৩ মাস ধরে এসব নানান চিন্তা ভাবনা ও মানষিক চাপ সহ্য করতে না পেরে আত্যহত্যার পথ বেছে নেন তুহিন আলম ফিরোজ।

সে তার স্ট্যাটাসে লিখে ছিলো – জীবনের শেষ স্ট্যাটাস লিখেই গেলাম! আসলে আমি কি?

জীবনে না পারলাম বাবা ও মায়ের ভালো একজন সন্তান হতে! না পারলাম আদোরে বোনদের কাছে ভালো একজন ভাই হতে, আর না পেরেছি আত্মিয়-স্বজনদের কাছে ভালো কেউ হতে। এমন কি কারো কাছেই কারো মনের মতো হতে পারিনি, যদিও একজের কাছে আমি খুব প্রিয় কিন্তু তার পরিবারের কাছে হতে পারিনি যোগ্য। এই জীবনে শুধু সমস্যা আর সমস্যা! পরিবারের চাপ, ভবিষ্যৎ নিয়ে চিন্তা ভাবনা, চাকুরি, জীবন সঙ্গিনী এতো ডিপ্রেশন সব মিলিয়ে মনে হয় দম বন্ধ হয়ে আসছে।

এমন আরো অনেক অভিযোগ ছিলো তার ফেসবুক পোষ্টে, তার মনে চেপে রাখা অনেক কথা তার ফেসবুকে লিখে সবার কাছে বিদায় নিয়ে আত্মহত্যার পথ বেছেনেন ফিরোজ আলম তুহিন।


কুমিল্লা টাইমস’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন

বিজ্ঞাপন

সকল স্বত্বঃ কুমিল্লা টাইমস কতৃক সংরক্ষিত

Site Customized By NewsTech.Com