1. admin@comillatimes.com : Comilla Times : Comilla Times
  2. fm.polash@gmail.com : Foyshal Movien Polash : Foyshal Movien Polash
  3. lalashimul@gmail.com : Sazzad Hossain Shimul : Sazzad Hossain Shimul
কুবি প্রশাসনের অর্থায়নে ছাত্রলীগের ক্রিকেট টুনামেন্ট, বঞ্চিত সাধারণ শিক্ষার্থীরা | Comilla Times
ব্রেকিং নিউজ
"কুমিল্লা টাইমস টিভিতে" আপনার প্রতিষ্ঠান অথবা নির্বাচনী প্রচারনার জন্য এখনি যোগাযোগ করুন : ০১৬২২৩৮৮৫৪০ এই নম্বরে
শিরোনাম:
দেবীদ্বারে যুবলীগের আয়োজনে শান্তি-সম্প্রীতি র‌্যালী ও আলোচনা সভায় দু’গ্রুপের সংঘর্ষ; আহত-১০ পূজামণ্ডপের ঘটনায় ৭ দিনের রিমান্ডে ইকবাল নবীনগরে চেয়ারম্যান প্রার্থী’র পক্ষে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সাম্প্রদায়িক সহিংসতার প্রতিবাদে কুবিতে মোমবাতি প্রজ্জ্বলন কুমিল্লার ঘটনায় কক্সবাজার থেকে ইকবাল আটক কুমিল্লা ইউনিভার্সিটি ট্রাভেলার্স সোসাইটির যাত্রা শুরু বাঙ্গরায় হত্যা মামলার পলাতক আসামী গ্রেফতার কুমিল্লায় কোরআন অবমাননার ঘটনার মূলহোতা গ্রেপ্তার “কুমিল্লা টাইমস টিভি” দেশের অন্যতম সংবাদ মাধ্যম চিত্রাংকনে জেলায় পর্যায়ে সাফল্য অর্জন করেছে মুরাদনগরের শাফি মুরাদনগরে সিএনজি চালক হত্যার ঘটনায় গ্রেফতার দুই সাম্প্রদায়িক সহিংসতার বিরুদ্ধে কুবিতে মানববন্ধন মুরাদনগরে সম্প্রীতি সমাবেশ ও শান্তির শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত মুরাদনগরে সিএনজি চালকের গলাকাটা লাশ উদ্ধার থিয়েটার কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী সহায়তা কেন্দ্র স্থাপন

কুবি প্রশাসনের অর্থায়নে ছাত্রলীগের ক্রিকেট টুনামেন্ট, বঞ্চিত সাধারণ শিক্ষার্থীরা

  • আপডেটের সময় : মঙ্গলবার, ১৬ মার্চ, ২০২১
  • ১৭১ বার পড়া হয়েছে
কুবি প্রশাসনের অর্থায়নে ছাত্রলীগের ক্রিকেট টুনামেন্ট, বঞ্চিত সাধারণ শিক্ষার্থীরা

কুবি প্রতিনিধি:

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের অর্থায়নে ‘মুজিববর্ষ ক্রিকেট টুর্নামেন্ট- ২০২১’ আয়োজনের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে শাখা ছাত্রলীগকে। প্রশাসনের অর্থে এ টুর্নামেন্ট আয়োজন হলেও ছাত্রলীগ নেতাকর্মীর বাহিরে কোন সাধারণ শিক্ষার্থী অংশগ্রহণের সুযোগ পাননি। শাখা ছাত্রলীগ সভাপতির দাবি এটি তাদের দলীয় টুর্নামেন্ট সেখানে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সহযোগীতা করেছে। এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

জানা গেছে, মুজিববর্ষ উপলক্ষে আয়োজিত এ টুর্নামেন্টে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থ বরাদ্দ দেওয়া হলেও জার্সিতে আয়োজক হিসেবে রয়েছে ছাত্রলীগের নাম। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আবাসিক তিনটি ছাত্র হল থেকে সর্বমোট আটটি দল খেলায় অংশগ্রহণ করতে নাম নিবন্ধন করে। সাত বীরশ্রেষ্ঠ ও ভাষাসৈনিক শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্তের নামে নামকরণ করা এসব দলে অংশগ্রহণের সুযোগ পায় নাই কোন সাধারণ শিক্ষার্থী । শুধুমাত্র শাখা ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরাই এতে অংশগ্রহণ করার সুযোগ পেয়েছেন। এমনকি বিভিন্ন সময়ে আয়োজিত বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তঃবিভাগ টুর্নামেন্টের সেরা খেলোয়াড়দেরও এ টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণ করতে দেওয়া হয়নি। বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থায়নে শিক্ষার্থীদের সাধারণ শির্ক্ষাথীদের খেলতে না দিয়ে প্রশাসন বৈষম্য তৈরি করেছেন বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন শিক্ষার্থীরা।

গতবছর আয়োজিত বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তঃবিভাগ টুর্নামেন্টের ১৯ টি দলের বেশ কয়েকজন অধিনায়কের সাথে কথা হলে তারা এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন। নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক একটি দলের অধিনায়ক বলেন, ‘প্রশাসনের অর্থায়নে আয়োজিত এ টুর্নামেন্টে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোন টপ পারফর্মার নেই। শুধুমাত্র ছাত্রলীগ না করায় বঞ্চিত হচ্ছে সাধারণ শিক্ষার্থীরা। এতে নিঃসন্দেহে টুর্নামেন্টের সৌন্দর্য হারাবে।’
নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক আরেকজন শিক্ষার্থী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ‘শুধুমাত্র ছাত্রলীগের জন্য ক্রিকেট টুর্নামেন্ট আয়োজন করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। ফলে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বরাদ্দ দেওয়া হলেও ছাত্রলীগের বাহিরে কেউ খেলার সুযোগ পাচ্ছেনা। প্রশাসনের এমন বৈষম্যমূলক আচরণ কোনভাবেই মেনে নেওয়া যায়না।’

এদিকে এ টুর্নামেন্টের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কত টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে তা জানেন না খোদ অর্থ দপ্তরের পরিচালক। বরাদ্দের বিষয়ে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থ ও হিসেব দপ্তরের পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) কামাল উদ্দিন ভূইয়া বলেন, ‘আমি এ ব্যাপারে কিছু জানিনা। আপনারা ছাত্রলীগকে জিজ্ঞেস করেন কতটাকা বাজেট দেওয়া হয়েছে।’ তবে দপ্তরের পরিচালক হিসেবে তাঁর এ তথ্য জানার কথা কিনা এমন প্রশ্নে তিনি কোন তথ্য দিতে পারবেন বলে জানান। তবে অনুসন্ধানে জানা যায়, এক শিক্ষকের নামে একটি চেক অনুমোদন দেওয়া হয়। মূলত সেই টাকা থেকেই এ টুর্নামেন্টের জন্য বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে শিক্ষক সমিতির সভাপতি ও ক্রীড়া পরিচালনা কমিটির আহ্বায়ক ড. মো: শামিমুল ইসলাম বলেন, এ টুর্নামেন্ট সাধারণ শিক্ষার্থীদের জন্য আয়োজন করা হয়েছে। শিক্ষার্থীদের নামে একটি আবেদনপত্র এসেছিল। সেই হিসেবেই বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। তাঁরা খেলতে না পারলে বিষয়টা খুবই দুঃখজনক।

এদিকে শাখা ছাত্রলীগ সভাপতি ইলিয়াস হোসেন সবুজ এ টুর্নামেন্টকে নিজেদের দলীয় টুর্নামেন্ট দাবি করে বলেন, ‘এ টুর্নামেন্টের বাজেটের একটি অংশ ছাত্রলীগ ম্যানেজ করেছে। এটা ছাত্রলীগের দলীয় টুর্নামেন্ট। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন এতে সহযোগীতা করেছে।’

তবে এ বিষয়ে জানতে চাইলে উপাচার্য অধ্যাপক ড. এমরান কবির চৌধুরী কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি ।


কুমিল্লা টাইমস’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন

বিজ্ঞাপন

সকল স্বত্বঃ কুমিল্লা টাইমস কতৃক সংরক্ষিত

Site Customized By NewsTech.Com
x
error: CONTENT IS PROTECETED !!